Connect with us

Entertainment

Dipanwita Rakshit: মাস গেলে লক্ষাধিক টাকা উপার্জন, রোজ করেন জিম তবুও মহালয়ার সকালে আম বাঙালির মত প্লেট ভর্তি কচুরি-আলুর দম খাচ্ছে “খুকুমণি” দীপান্বিতা! দেখে বেজায় খুশি দর্শকরা

Published

on

মহালয়া মানে বাঙালির কাছে একটা আবেগ, একটা স্নিগ্ধ সকাল যে সকাল নিয়ে আসে আনন্দের বার্তা, মায়ের আগমনীর বার্তা। নিষিদ্ধ সকালে কেউ কেউ ভোরবেলা উঠে রেডিওতে মহিষাসুরমর্দিনী শোনে আবার কেউ বিশেষ করে বর্তমান প্রজন্মের ছেলেমেয়েরা টিভিতে মহিষাসুর বধ দেখতে ভালোবাসে। বিভিন্ন নায়ক নায়িকাদের সমাগমে সে যেনো এক চাঁদের হাট। পছন্দের অভিনেতা বা অভিনেত্রীদের দুর্গা, অসুর কিংবা অন্যান্য রূপে দেখতে পেয়ে অভিভূত হয়ে যায় দর্শকরা।

তবে কেউ কেউ এই সুন্দর দিনে খোলা হাওয়া খেতে বাইরে বেরিয়ে পড়ে রেডিওতে বীরেন্দ্রকৃষ্ণ ভদ্রের গলায় মহিষাসুরমর্দিনী শোনার পর। এই পবিত্র দিনের শুরুটা অনেকেই প্রকৃতির সঙ্গে করতে চায় কারণ সেই প্রকৃতি আভাস দেয় মা আসছে। এই সময় শরতের আকাশে পেঁজা তুলো, শান্ত স্নিগ্ধ ঠান্ডা হাওয়া সব মিলিয়ে জমে যায় সকালটা।

এই স্নিগ্ধ কোমল অনুভূতি নিজে অনুভব করতে এবার সকাল সকাল বেরিয়ে পড়েছিলেন অভিনেত্রী দীপান্বিতা রক্ষিত। এই অভিনেত্রীকে বেশিরভাগ মানুষ এখনও চেনে খুকুমণি হিসেবে। পর্দার খুকুমণি হোম ডেলিভারি ধারাবাহিকের মধ্যে দিয়ে দীপান্বিতা উঠে এসেছিলেন অন্যতম জনপ্রিয় এক অভিনেত্রী হিসেবে। এই মুহূর্তে আর ধারাবাহিকে দেখা যাচ্ছে না নায়িকাকে তবে এখন তিনি একটি জনপ্রিয় নাচের অনুষ্ঠানে মেন্টর পদে রয়েছেন আর মাঝে মাঝেই নজর কাড়ছে তাঁর নানা কীর্তি।

 

View this post on Instagram

 

A post shared by Dipanwita Rakshit (@dipanwitarakshit)

মহালয়ার পুণ্য লগ্নে নায়িকা গিয়েছিলেন প্রিন্সেপ ঘাট। সঙ্গে ছিলেন এক বন্ধু। বন্ধুর সঙ্গে ভোরবেলা বেরিয়ে পড়েছিলেন ঠান্ডা হাওয়া খেতে। ফেরার পথে প্রাতঃরাশ সেরেছিলেন এক দোকানে। ক্লাব কচুড়ি খেয়ে দিন শুরু করলেন তিনি ওই দিনে। আর সেই ভিডিও এখন ভাইরাল সোশ্যাল মিডিয়াতে।

 

View this post on Instagram

 

A post shared by Dipanwita Rakshit (@dipanwitarakshit)

একেবারে ছিমছাম সাজে দেখা গেলো দীপান্বিতকে। নায়িকার পরনে নীল রঙের একটি কুর্তি, কানে ঝুমকো দুল, নাকে একটি সুন্দর ত্রিশূলরূপী নাকছাবি। সঙ্গে মানানসই একেবারে হালকা মেকআপ। ভোরবেলা নায়িকার এই স্নিগ্ধ সুন্দর সাজ নজর কেড়েছে দর্শকদের। তার থেকেও বেশি নজর কেড়েছে নায়িকা যেটা খাচ্ছেন সেটা। পুজোর সময় এটা সেটা আমরা খেয়েই থাকি তবে মহালয়া থেকেই যে নায়িকার ভুরিভোজ শুরু হয়ে গেল এটাই তার প্রমাণ।

এই নিয়ে কটাক্ষ কম শুনতে হয়নি তাঁকে। আসলে পুজোর আগে যেখানে সব বাঙালি মেয়েরা ডায়েট করতে ব্যস্ত সেখানে নায়িকা সব ভুলে গিয়ে ক্লাব কচুটি আর আলুর দম খাচ্ছেন এই ব্যাপারটা ঠিক গ্রহণযোগ্য নয় বাঙালি দর্শকদের কাছে। তাই একজন মজা করে লিখেছেন পুজোর আগে ভালই ডায়েট হচ্ছে তো। যদিও নিন্দুকদের তুলনায় নায়িকার ভক্তদের সংখ্যা বেশি এবং সে তার প্রকাশ ঘটেছে কমেন্ট বক্সে। একেবারে সাদামাটা আম বাঙালির মতো ছুটির দিনটা তিনি শুরু করেছেন এর থেকে ভালো শুরু আর কী হতে পারে?

 

View this post on Instagram

 

A post shared by Dipanwita Rakshit (@dipanwitarakshit)

Click to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Trending