Connect with us

Bangla Serial

দেখে দেখে ক্যারাটে শিখেছিল তুবড়ি, শাড়ি পরে নেচে নেচে গুন্ডাদের মারলো অর্জুনের বউ! ‘কেন যে এসব দেখায়?’, বিরক্ত নেটিজেনরা

Published

on

জি বাংলার অন্যতম বিতর্কিত ধারাবাহিক হলো উড়ি উড়ি উড়ি উড়ি উড়ন তুবড়ি। যদিও তুবড়ি ডায়লগ দেয় একবার জ্বললে সহজে নেভে না কিন্তু এর মধ্যেই দুবার নিভে গেছে উড়ন তুবড়ি কারণ সময় বদলে দেওয়া হয়েছে।যাই হোক বর্তমানে এখনো বিয়ের ট্র্যাক থেকেই বেরোতে পারেনি এই সিরিয়াল, এখন সবে রিসেপশন চলছে। তুবড়ি পুলিশের চাকরির পরীক্ষা দিতে গিয়েছিল কিন্তু অর্জুনের মায়ের কুটনামি বুদ্ধিতে এবং অর্জুনের মামা মামি ও নিশার কারসাজিতে তুবড়ি বিপদে পড়ে যায়।তাকে কিডন্যাপ করে নিয়ে যায় এক ট্যাক্সি ড্রাইভার। যেটা আগে থেকেই প্ল্যান করা ছিল। রাত হয়ে যায় তবুও তুবড়ি বাড়ি ফেরে না ফলে রিসেপশন পার্টি ভেস্তে যায় এবং সকলেই তুবড়ির নামে দোষ দেয় বিশেষ করে অর্জুনের মা মামা মামি ও নিশা। তারা তো এটাই চেয়েছিল।

অন্যদিকে তুবড়ি ট্যাক্সিচালকের মাথায় আঘাত করে পালাতে যায় তবে পরে আবার ট্যাক্সি চালক তাকে ধরে ফেলে এবং আরো দুজন গুন্ডার সাথে মিলে সেই ট্যাক্সি ড্রাইভার তুবড়িকে যখন মারতে যায়,তুবড়ি পাথর দিয়ে মারে ওই ট্যাক্সিচালককে। তুবড়ি একা হাতে লড়াই করে দুজন গুন্ডার সাথে আর সেটা দূর থেকে দাঁড়িয়ে দেখে নিশার বাবা।ভারী শাড়ি, গয়না পরে যেভাবে নেচে নেচে গুন্ডাদের মারলো তুবড়ি তা দেখে হাসি আর থামছে না দর্শকদের।

পরে যখন ট্যাক্সি ড্রাইভার বন্দুক বার করে তুবড়ির দিকে ধরে তখন নিশার বাবা গুলি মারে ওই ট্যাক্সি ড্রাইভারের হাতে এবং পুলিশ দিয়ে তিনজনকে ধরে নিয়ে যায়। তুবড়ি জানায় যে সেরকম ক্যারাটে শিখেছে পাড়ায় দেখে দেখে। দর্শকরা বলছে যে এবার গাঁ’জা একটু কমান। ধারাবাহিকটাকে আর সহ্য করা যাচ্ছে না।তুবড়ির দাঁত চিপে চিপে কথা বলা আর শুধু হম্বিতম্বি করা। অর্জুন এর পুরো ভোল পাল্টে যাওয়া এবং মায়ের কথায় ওঠাবসা, নিশা আর মামা-মামীর বদমাইশি দেখতে দেখতে বিরক্ত নেটিজেনরা। এখনো বিয়ের গল্পই শেষ হলো না। এই দর্শকরা চাইছেন হয় গল্প পাল্টানো হোক নয়তো ধারাবাহিকটাকেই বন্ধ করে দেওয়া হোক‌।

Click to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Trending