Connect with us

Entertainment

“ওদের জন্য কোনো কষ্ট হচ্ছে না”! পল্লবী-বিদিশা-মঞ্জুষার মৃত্যু নিয়ে এ কী বলে ফেললেন রচনা ব্যানার্জি?

Published

on

টলিউডের অন্যতম স্বনামধন্য অভিনেত্রী হলেন রচনা ব্যানার্জি। দীর্ঘদিন বাংলা এবং ওড়িশা ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রি কাঁপিয়ে দেওয়ার পর এবার টেলিভিশনের পর্দায় শাসন চালাচ্ছেন তিনি। যতটা না তিনি অভিনয়ের মাধ্যমে জনপ্রিয় হয়েছেন তার থেকে বেশি এখন জনপ্রিয় তিনি হয়তো দিদি নাম্বার ওয়ান রিয়্যালিটি শো-এর কারণে।

সম্প্রতি পল্লবী দে, বিদিশা দে মজুমদার এবং মঞ্জুষা নিয়োগী নামক তিন টলিউড অভিনেত্রীর রহস্য মৃত্যুকে ঘিরে উত্তাল টলিপাড়া। বিদিশা এবং মঞ্জুষা মডেলিংও করতেন। তিনজনের পরপর মৃত্যু একটাই প্রশ্ন তুলছে যে এতটা কম বয়সে তাজা প্রাণগুলোর মৃত্যুর পেছনে কি দায়ী অবসাদ?

এবার এই নিয়ে মুখ খুললেন অভিনেত্রী রচনা ব্যানার্জি। নায়িকার বক্তব্য জীবনের সব কিছুই খুব সহজে পেয়ে গিয়েছিলেন এই অভিনেত্রীরা। তাই জীবনটা কী সেটা উপলব্ধি করতে পারেননি। কিছু করবেন না অথচ কাজ চাই। সবটাই পেতে হবে। এই ইচ্ছে পূরণ না হওয়ার কারণে মনের মধ্যে অবসাদ ঢুকছে। প্রত্যেকের জীবনে সংগ্রাম করা জরুরি। এটাই এখন চাইছে না কেউ। এখন ক্লাস ১০, ১২ হলেই মেয়েরা সিরিয়াল করতে চলে আসে। কিছু কাজ করার পরই হাতে আসে কাঁচা টাকা আর তারপরই ফুর্তি শুরু। এটাতো জীবন নয় সেটা কে বোঝাবে?

নায়িকার আরও দাবি যে তিনি মা-বাবাকে দোষ দিতে চান না। কারণ পৃথিবীতে এমন কোনও মা-বাবা নেই যাঁরা সন্তানের ভালোটা চান না। তাঁরা পরামর্শ দিলেও সন্তানরা সেটা শুনবে কিনা সেটা তাদের সিদ্ধান্ত। সেটা না শুনলেই এই পরিণতি হয়। যে বাবা-মা মানুষ করল তাঁদের জন্য ওদের কষ্ট হয়না। তাদের কথা ভাবলই না আর নায়িকা বলেছেন তাই এই মেয়েগুলোর জন্য তাঁর মনে কোনও রকম কষ্ট নেই।

নায়িকা বলেন এই জীবন সুন্দর। তাই সেটা উপভোগ করা উচিত। তারপর তো জীবনে পাওয়া না পাওয়ার হিসাব করা উচিত। একটা ছেলের জন্য জীবন কি করে দেওয়া যায়? সে কেন কারুর জীবন নিয়ন্ত্রণ করবে?

Click to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Trending