বেঁচে যাওয়া রুটি দিয়েই মজাদার টিফিন ! বাচ্চাকে কাল সকালে ১৫ মিনিটেই তৈরী করে দিন সুদীপা চ্যাটার্জী স্পেশাল এই নতুন পদ – Tolly Tales
Connect with us

Food

বেঁচে যাওয়া রুটি দিয়েই মজাদার টিফিন ! বাচ্চাকে কাল সকালে ১৫ মিনিটেই তৈরী করে দিন সুদীপা চ্যাটার্জী স্পেশাল এই নতুন পদ

Published

on

রোজ নতুন নতুন রান্না। সকাল থেকে রাত অবধি এতো পদ রান্না সত্যি চাপের। আর তার উপর অফিস থাকলে তো হয়েই গেলো। কিন্তু তবুও মাঝে মাঝে স্বাদবদল দরকার।

তবে সেই রান্না চটজলদি তৈরী হতে পারলে আরো ভালো। তবে আজ আপনাদের মুশকিল আসান নিয়ে এলাম। বাঙালিদের অনেকেই রুটি খান। বাসি হয়ে গেলে ফেলে দেন তো? অনেকেই বাসি রুটি গরম করে খেয়ে নেন। এবার ফেলবেন না। বরং এটা দিয়েই হয়ে যাবে একটা স্ন্যাক। আপনাদের জন্য বেঁচে যাওয়া রুটি দিয়েই একটি দুর্দান্ত স্বাদের সান্ধ্য টিফিন তৈরির রেসিপি শেয়ার করা হলো। পেস্ট্রি, পিৎজার যুগে ভালো কিছু খাওয়ানোই মুশকিল বাচ্চাদের। সবজির টুকরো ভরে এটা বানান। ঝটপট রেসিপি দেখে নিন।

উপকরণ: রুটি
সুতো
চিজ
পেঁয়াজ কুচি, ক্যাপসিকাম কুচি
বেবি কর্ন, গাজর কুচি
সেদ্ধ আলু
মেয়োনিজ, টমেটো সস,
লঙ্কা গুঁড়ো

পদ্ধতি: বেঁচে যাওয়া রুটিগুলিকে গ্লাসের মাঝে রেখে সেটাকে গ্লাসের চারিদিকে মুড়ে একটা সুতো দিয়ে ভালো করে বেঁধে নেবেন। রুটিগুলোকে ভাজতে হবে। তবে একটা ছোট্ট কৌটোর মত শেপ দিতে হবে। কড়ায় বেশ কিছুটা তেল দিয়ে তাতে ডিপ ফ্রাই করে ভেজে নিতে হবে রুটিগুলিকে। সবটা ঠান্ডা হলে সুতো কেটে গ্লাস থেকে রুটিগুলোকে আলাদা করে নিয়েও ছোট্ট ছোট্ট কৌটো তৈরী হয়ে যাবে।

রুটির তৈরী এই ছোট্ট কৌটোর মধ্যে সেদ্ধ আলু কুচি, পেঁয়াজ কুচি, ক্যাপসিকাম কুচি ঢালুন। সবজি দেওয়ার পর তারপর মেয়োনিজ ও টমেটো কেচাপ দিয়ে শেষে চিজ গ্রেট দেবেন উপর থেকে। একটা বড় কড়ায় জল দিয়ে তার ওপর একটা স্ট্যান্ড মত দিয়ে তাতে এই রুটির ছোট্ট পিৎজা রেখে ১০ মিনিট মত ভাপিয়ে নেবেন। এবার এই টিফিন পরিবেশন করুন। সঙ্গে র কিছুই লাগবে না।

Click to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Trending